কাছ থেকে দেখলাম ষাটগম্বুজ মসজিদ

“মসজিদের ফটকের সামনে রয়েছে বিস্তারিত তথ্য। তারপর ঢুকে মসজিদের চারপাশ দেখলাম।”
কাছ থেকে দেখলাম ষাটগম্বুজ মসজিদ

বইয়ে অনেক পড়েছি বাগেরহাটে রয়েছে বিশ্ব ঐতিহ্য ষাটগম্বুজ মসজিদ। কিন্তু কখনো যাওয়া হয়নি। অবশ্য আমার মামা বাড়ি বাগেরহাট জেলায় অবস্থিত।

আমার মামার অনেক ছবি দেখি ষাটগম্বুজ মসজিদ এলাকায় তোলা। আমারও যেতে ইচ্ছে করে তার ছবি দেখে। পরীক্ষা শেষ হলে আমি বেশিরভাগ মামা বাড়িতেই আসি যশোর থেকে।

আমাদের যশোর থেকে বাগেরহাট আসার সময় বাস থেকে মসজিদটি দেখতে অনেক সুন্দর লাগে। তাই এবার মামা বাড়ি শীতের সময় বেড়াতে গিয়ে হঠাৎ করেই ষাটগম্বুজ মসজিদ ঘুরে আসলাম।

টিকিট কেটে ঢোকার পর চারপাশের গাছগুলো অনেক সুন্দর লাগে আমার কাছে। আমরা বিকালের দিকে গিয়েছিলাম, তাই শীতের ঠাণ্ডা হওয়া লাগছিল।

আমরা আগে মসজিদ দেখতে চলে গেলাম। মসজিদের ফটকের সামনে রয়েছে বিস্তারিত তথ্য। তারপর ঢুকে মসজিদের চারপাশ দেখলাম। কাছ থেকে অনেক সুন্দর লাগছিল মসজিদটি।

মসজিদের পিছনে রয়েছে একটি দীঘি, তার নাম জানা ছিল না তাই মামার কাছ থেকে জেনে নিলাম এর নাম ঘোড়াদীঘি। সেখানে ঘুরলাম কিছুক্ষণ। এরপর জাদুঘরে ঢুকে অনেক প্রাচীন কিছু দেখতে পেলাম যা আগে কখনো দেখিনি আমি। বিকাল হয়ে যাওয়াতে খুব তাড়াতাড়ি বের হয়ে আসি।

মসজিদটি ঘুরে অনেক ভালো লাগে আমার। এতদিন গাড়ি থেকে দেখতাম কিন্তু এবার কাছ থেকে দেখে অনেক ভালো লাগল আমার।

প্রতিবেদকের বয়স: ১১। জেলা: যশোর।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.

সর্বাধিক পঠিত

No stories found.
bdnews24
bangla.bdnews24.com