বিশ্বজুড়ে

মুহাম্মাদ শরিফুজ্জামান বাপ্পি (১৫), রাজশাহী

Published: 2019-06-24 16:50:53.0 BdST Updated: 2019-06-24 16:50:53.0 BdST

এই সময়ের তো বটেই সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার লিওনেল মেসি।

লিওনেল মেসি ১৯৮৭ খ্রিস্টাব্দের ২৪ জুন আর্জেন্টিনায় জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা হোর্হে ওরাসিও ছিলেন কারখানার শ্রমিক এবং মা সেলিয়া মারিয়া ছিলেন পরিচ্ছন্নতাকর্মী।

মেসির পূর্বপুরুষদের আদি নিবাস ছিল ইটালিতে। ১৮৮৩ খ্রিস্টাব্দে তার পূর্বপুরুষদের একজন অ্যাঞ্জেলো মেসি আর্জেন্টিনায় চলে আসেন।

মেসির বড় দুই ভাই ও ছোট এক বোন রয়েছে। এক ভাইয়ের নাম রদ্রিগো, অন্য ভাইয়ের নাম মাতিয়াস এবং ছোট বোনের নাম মারিয়া সল।

তার দাম্পত্য সঙ্গী আন্তোনেল্লা রক্কুজ্জো। তার দুটো সন্তান। একজনের নাম থিয়াগো মেসি, অন্যজনের নাম মাতেও মেসি।

আর্জেন্টিনায় জন্ম নেওয়া মেসি শৈশবে গ্রোথ হরমোন সংক্রান্ত জটিলতায় আক্রান্ত হন। ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনার তৎকালীন ক্রীড়া পরিচালক কার্লোস রেক্সাস তার প্রতিভা দেখে মুগ্ধ হয়ে তাকে স্পেনে নিয়ে এসে সম্পূর্ণ চিকিৎসার ব্যয়ভার বহন করেন।

বার্সেলোনা বি ও সি দলে খেলার পর ২০০৪ সালের অক্টোবরে তার বার্সেলোনা মূল দলে অভিষেক হয়। ২০০৫ সালের আগস্টে তার আর্জেন্টিনা জাতীয় দলে অভিষেক হয়।

লিওনেল মেসি বর্তমানে স্পেনের জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা ও আর্জেন্টিনা জাতীয় ফুটবল দলের ফরওয়ার্ড ও ক্যাপ্টেনের দায়িত্ব পালন করছেন।

বার্সেলোনা ও আর্জেন্টিনা জাতীয় দলে অভিষেকের পর থেকেই একের পর এক রেকর্ড গড়েছেন মেসি। পেছনে ফেলেছেন ফুটবলের অনেক রথী-মহারথীদের।

লিওনেল মেসি রেকর্ডসংখ্যক পাঁচবার 'ব্যালন ডি অর' জয় করেছেন, যার চারটিই জিতেছেন টানা চার বছরে। তাছাড়া 'ইউরোপীয় গোল্ডেন সু' পাঁচবার জয়ের রেকর্ডও মেসির দখলে।

বার্সেলোনাকে তিনি মোট ৩২টি শিরোপা জিতিয়েছেন, যার মধ্যে রয়েছে নয়টি 'লা লিগা', চারটি 'উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লীগ' এবং ছয়টি 'কোপা দেল রে'। ২০১৪ ফুটবল বিশ্বকাপে মেসির নেতৃত্বে আর্জেন্টিনা ফাইনালে গেলেও ভাগ্য তাদের সহায় ছিল না।

'লা লিগা'য় এক মৌসুমে সর্বোচ্চ গোল, ইউরোপে এক মৌসুমে সর্বোচ্চ গোল, এক পঞ্জিকাবর্ষে সর্বোচ্চ গোল, চ্যাম্পিয়নস লিগে সর্বোচ্চ হ্যাট্রিকসহ অসংখ্য রেকর্ডের মালিক লিওনেল মেসি।

মেসি আর্জেন্টিনা জাতীয় দল ও বার্সেলোনা মূল দলের ইতিহাসে সর্বোচ্চ গোলদাতা। এই দুই দলের হয়ে তিনি প্রায় ৬০০টি গোল করেছেন।

ম্যারাডোনা, পেলেসহ ফুটবলের অসংখ্য কিংবদন্তী লিওনেল মেসির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। অনেক ফুটবল বিশেষজ্ঞ মেসিকে 'ফুটবলের জাদুকর' হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন। ব্রাজিলীয় ফুটবলার পেলে মেসি সম্বন্ধে বলতে গিয়ে বলেছেন, 'আমি রাজা হলে, সে রাজপুত্র।'

লিওনেল মেসি ২০১৪ ফুটবল বিশ্বকাপে সেরা খেলোয়াডের খেতাব অর্জন করেন। একইসাথে পেয়ে যান 'গোল্ডেন বল'।

লিওনেল মেসি বর্তমানে ধনী ফুটবলারদের তালিকায় এক নম্বরে রয়েছেন। তিনি বার্সেলোনা থেকে যে পারিশ্রমিক পান, সেটা তাকে সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক প্রাপ্ত ফুটবলারে পরিণত করেছে।

শুধু ফুটবলার হিসেবে নন, ব্যক্তি হিসেবেও মেসি অনন্য। ২০০৭ সালে মেসি তৈরি করেন 'লিও মেসি ফাউন্ডেশন'। এই সংস্থা অসুস্থ, প্রতিবন্ধী, সুরক্ষিত নয় এমন শিশুদের নিয়ে কাজ করে।

২০১০ সালের ১১ মার্চ মেসিকে ইউনিসেফের শুভেচ্ছা দূত ঘোষণা করা হয়। লিওনেল মেসির ৩২তম জন্মবার্ষিকীতে আমাদের পক্ষ থেকে রইল ভালোবাসা আর শ্রদ্ধা। তিনি আর তার কীর্তিগুলো বেঁচে থাকুক হাজার বছর।

Print Friendly and PDF

সর্বাধিক পঠিত