খবরাখবর

আয়াতুল ইসলাম আশফি (৮), ঢাকা

Published: 2020-02-06 15:05:08.0 BdST Updated: 2020-02-06 15:06:57.0 BdST

জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রাত কিংবা দিনে ঘণ্টার পর ঘণ্টা এটিএম বুথে যারা অন্যের সম্পদ পাহারা দেন তাদের যেমন জীবনের নিরাপত্তা, ঠিক তেমনি নেই আর্থিক সচ্ছলতাও।

রাজধানীর বিভিন্ন ব্যাংকের এটিএম বুথে প্রতিদিন ১৬ ঘণ্টা কাজ করতে হয় নিরাপত্তাকর্মীদের। এছাড়াও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন মেয়াদে কাজ করে থাকেন নিরাপত্তা কর্মীরা। রোদ-বৃষ্টিতে ভিজে মশার উপদ্রব উপেক্ষা করে অন্যের সম্পদ রক্ষা করার দায়িত্বে নিয়োজিত থাকেন।

সম্প্রতি কথা হয় কয়েকজন নিরাপত্তাকর্মীর সঙ্গে।

জানালেন, যে আয় হয় তা দিয়ে বড়জোর কোনো রকম খাবার জোটে।

নিরাপত্তাকর্মী জলিল মিয়া ভেজা ভেজা চোখে বলেন, “অভ্যেস হয়ে গেছে আমাগো। বেতন তেমন বেশি না। কোনো রকম চলে আরকি। ব্যস্ত শহর বলেই থাকতে পারি, ভালোই লাগে কিন্ত ফাঁকা থাকলে ভয় লাগতো। খাওয়ার কোনো উপায় থাকে না। ব্যাংক ছাইড়া কোনদিকে যাওয়া যায় না।”

অন্য একটি বেসরকারি ব্যাংক বুথের নিরাপত্তা কর্মী বলেন, “বিভিন্ন সমস্যায় পড়তে হয়। সারারাত জেগে থাকি। কেউ আইসা হামলা করলে আমাদের তো আর কিছু করার নাই।

“১৬ ঘণ্টা ডিউটি কইরা রেস্ট পাই না। শারীরিক অনেক সমস্যা হয়। ৮ থেকে ১০ ঘণ্টা হইলে ভালো হইত ডিউটি।”

অনেক কিছুই বলতে চেয়েও বলতে পারেননি নিরাপত্তা কর্মীরা। সপ্তাহে একদিন ছুটি বাদে সরকারি ছুটি, ইদ এবং বিশেষ কোনো ছুটি না পাওয়ার আক্ষেপও করেন তারা।

Print Friendly and PDF

সর্বাধিক পঠিত