সংগ্রামী রিজিয়া (ভিডিওসহ)

ঠিকমতো বেতন ও যোগ্য মর্যাদা না পাওয়ায় তিনি এই কাজ ছেড়ে নিজেই একটি হোটেল চালু করার সিদ্ধান্ত নেন।

বিবাহ বিচ্ছেদের পর আট বছর একটি হোটেলে কাজ করার পর এখন নিজেই একটি হোটেলের মালিক হয়েছেন রিজিয়া বেগম নামে সাতক্ষীরার এক নারী।

সাতক্ষীরা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের ফটকের সামনে তার ছোট হোটেলটি।

৪০ বছর বয়সী রিজিয়ার বিয়ে হয় জেলার কালীগঞ্জের কুশুলিয়া গ্রামে। স্বামী মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার পর দুই শিশু সন্তানের ভবিষ্যত নিয়ে মাথায় ভাঁজ পড়ে তার। এক আত্মীয়ের সঙ্গে জেলা শহরের আমতলা মোড় সংলগ্ন এলাকায় চলে আসেন।

আর্থিক টানাপোড়েন ঘুচাতে আট বছর একটি হোটেলের কর্মচারী হিসেবে কাজ করেন। ঠিকমতো বেতন ও যোগ্য মর্যাদা না পাওয়ায় তিনি এই কাজ ছেড়ে নিজেই একটি হোটেল চালু করার সিদ্ধান্ত নেন।

রিজিয়া জানান, হোটেল চালুর সময় অনেকেই কটুক্তি এবং তার কাজের তিরস্কার করেছেন। কিন্তু দমে যাননি তিনি। ভোর চারটা থেকে সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত নিজের হোটেলে কাজ করেন তিনি।

রিজিয়া হ্যালো ডট বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “অনেক কষ্টে একজন এই দোকানটা তৈরি করে দিছে। আমি ভেলপুরি, ডালপুরি, সিঙ্গারা, খিচুড়ি এইগুলো তৈরি করি। এতে আমি আস্তে আস্তে সফল হচ্ছি।”

প্রতিবেদকের বয়স: ১৩। জেলা: সাতক্ষীরা।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.

সর্বাধিক পঠিত

No stories found.
bdnews24
bangla.bdnews24.com