আমার কথা

নাফিম আল মাহমুদ (১৪), ফেনী

Published: 2019-10-06 18:20:36.0 BdST Updated: 2019-10-06 18:20:36.0 BdST

২০১৮ সাল। জেএসসি পরীক্ষা শেষ। পুরো বছর অক্লান্ত পরিশ্রম করার পর সুযোগ হলো শীতকালীন অবকাশ কাটানোর। চলে গেলাম চট্টগ্রাম ভ্রমণে।

২রা ডিসেম্বর।  কনকনে শীতের মধ্যে ঘুম থেকে উঠতে চাচ্ছিলাম না। কিন্তু মাথায় আছে আজ তো চট্টগ্রাম ভ্রমণে যাওয়ার কথা।  বাস সকাল ৮.৩০ মিনিটে। সব অলসতা ভেঙে পরিবারের সকলের সাথে বেরিয়ে গেলাম চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে। 

আমরা বাসে করে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে রওনা দেই। প্রায় দুই ঘণ্টা পর আমরা চট্টগ্রামে পৌঁছে। বাস থেকে নেমে প্রথমে কুটুমবাড়ি রেস্টুরেন্টে নাস্তা করার পর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ঘোরাফেরা শুরু হলো।

প্রথমে আমরা চলে গেলাম ফয়েস লেক। কিন্তু  তখনও গেট বন্ধ। পাশেই অবস্থিত চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানা ঘুরে করলাম। সেখানে ছিল অনেক রকম  পশুপাখি।

সেখানে কিছুক্ষণ ঘুরে আবার চলে গেলাম ফয়েস লেকে। ফয়েস লেকের সবই যদিও কৃত্রিম তবুও ভালো লাগল।

আমি, আমার ভাই ও কাজিনরা বিভিন্ন রাইডে চড়েছি। খুবই আনন্দদায়ক ছিল রাইডগুলো।  কিছুক্ষণ  ঘোরাফেরা করলাম এবং কিছু ছবি নিলাম। সময় স্বল্পতার কারণে আমরা দুপুরের খাবার খেতে গেলাম এক চাইনিজ রেস্টুরেন্টে।  খাবারগুলোও সেদিন খুব ভালো লেগেছে। খাবার শেষ করে আবার যাত্রা শুরু পতেঙ্গার উদ্দেশ্যে। 

পতেঙ্গায় আমরা সন্ধ্যায় সূর্যাস্ত দেখি। এক অপরূপ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত এই পতেঙ্গা। সেখান থেকে চলে এলাম চট্টগ্রাম বাণিজ্য মেলায়। সেখানে ঘুরে আবার সেদিনই ফেনীতে চলে আসি।

সত্যি কথা বলতে গেলে আমার জীবনের প্রথম অভিজ্ঞতার ভ্রমণ ছিল এটি। এই চট্টগ্রাম ভ্রমণ আনন্দময় ছিল, কখনও ভুলব না।

Print Friendly and PDF

সর্বাধিক পঠিত